দীর্ঘদিন ধরেই টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে ভুগছেন বাংলাদশ জাতীয় দলের অধিনায়ক নাজমুল হোসেন শান্ত। নিজের ব্যাটিং স্ট্রাইকরেট নিয়ে ক্রমাগত সমালোচনার শিকার হচ্ছেন তিনি।

শান্তর ধারাবাহিক বাজে ব্যাটিং পারফরম্যান্সের কারণে তাকে বিশ্রামে রাখার পক্ষপাতী দেশের সাবেক অধিনায়ক মোহাম্মদ আশরাফুল। তার বদলে বিকল্প হিসেবে তানজিদ হাসান তামিমের কথাও তুলেছেন তিনি। সঙ্গে শান্ত না থাকা অবস্থায় অধিনায়ক হিসেবে আশরাফুলের ভরসা সাকিব আল হাসান।

সম্প্রতি দেশের প্রথমসারির এক ক্রীড়া গণমাধ্যমকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে আশরাফুল বলেন, ‘শান্ত নিজে থেকে দুইটা ম্যাচ বিশ্রাম নিয়ে অন্য কাউকে সুযোগ দিতে পারে। রাতারাতি একাদশে পরিবর্তন আনার পক্ষে আমি না। তারপরও আমার মনে হয় তানজিদ তামিমকে নিয়ে আসতে পারি। ম্যানেজমেন্ট সাহস করতে পারছেন না যেহেতু, ৭ ব্যাটার নিয়েই খেলবেন। সেহেতু একটাই পরিবর্তন হতে পারে- শান্তর জায়গায় তামিমকে আনা।’

শান্ত বিশ্রামে থাকলে অধিনায়ক হবেন কে? এই প্রশ্নের জবাবও দিয়েছেন আশরাফুল। সাবেক এই অধিনায়কের মতে, ‘ক্যাপ্টেন্সি সাকিব করতে পারে, যেহেতু সহ-অধিনায়ক তাসকিন ইঞ্জুরিতে।

কোচ-ম্যানেজমেন্ট সাকিবকে অনুরোধ করতে পারে অধিনায়কত্বের জন্য। দ্বিতীয় ম্যাচে একটা পরিবর্তনই আনা যেতে পারে। শান্তর একটু বিশ্রাম প্রয়োজন, বাইরে থেকে খেলা দেখা প্রয়োজন। যেহেতু স্ট্রাগল করছে, বিশেষ করে এই ফরম্যাটে।’

শান্তর বর্তমান ফর্ম নিয়ে আশরাফুলের মন্তব্য, ‘বিপিএলেও সবগুলো ম্যাচ খেলানো হয়েছে, এখানেই বড় ভুলটা হয়েছে। বিপিএলে ৫-৬ ম্যাচে বিশ্রাম দিলে ভালো ছন্দে আসার সুযোগ থাকত। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে একটা ফিফটি করলেও জিম্বাবুয়ের সাথে এতটা ভালো করতে পারেনি। ব্যাটিং কনফিডেন্স খুব লো মনে হচ্ছে।’

শান্তর স্ট্রাইক রেট নিয়ে আশরাফুল, ‘ওর এই স্ট্রাইক রেট এটা তো সবাই জানি। আমাদের দেশে সমস্যা হলো- এক ফরম্যাটে ভালো খেললে সব ফরম্যাটে বিবেচনা করে ফেলি। একটা রান করলে সব কিছু ভুলে যাই। যেহেতু বিশ্বকাপে চলেই গেছে, এখন তো পরিবর্তনের কিছু নেই। এখন এই অধিনায়ককেই সবার সমর্থন করতে হবে।

আশা করি শান্ত একটু সময় নেবে। জানি অনেক কঠোর পরিশ্রমী। উইকেটে গিয়ে একটু সময় নিতে হবে। ১১ বলে ৩ রান করে ডাউন দ্য উইকেটে গিয়েছে, স্পিনের বিরুদ্ধে এভাবে না গেলেও হত কারণ বোলারটা ভালো করছিল।

ভালো বোলারকে সম্মান দিতে হবে। অন্য কোনো শট ভাবতে হবে যে শট দিয়ে পাওয়ারপ্লেতে রান করা যাবে। এই ফরম্যাটে শান্ত স্ট্রাগল করছে। ২০২২ বিশ্বকাপেও দুটি ফিফটি করলেও স্ট্রাইক রেট ১১০ এর মতই ছিল। তখন সবাই দুটি ফিফটির কারণে বাহবা দিয়েছিলাম।’

অধিনায়ককে ম্যাচে ভালো কিছুর তাগিদ দিয়ে আশরাফুলের মন্তব্য ‘পারফর্ম না করলে বাংলাদেশ দলকে নেতৃত্ব দেওয়া খুবই কঠিন। কীভাবে পারফর্ম করবেন আপনাকেই বের করতে হবে’।

জীবন নিয়ে উক্তি