ঠিক কবে বা কখন থেকে এয়ারপোর্টে এই কার্যক্রম শুরু হবে তাও নিশ্চিত করতে পারেননি বেসামরিক বেসামরিক বিমান ও পর্যটন প্রতিমন্ত্রী মো. মাহবুব আলী।

এদিকে, দুবাইগামী আজকের বিশেষ ফ্লাইট বাতিল করা হয়েছে। ফলে ভোগান্তিতে পড়েছেন বিভিন্ন জেলা থেকে এয়ারপোর্টে আসা প্রবাসী বাংলাদেশিরা।

অবশেষে কাজে ফিরতে পারছেন- এমন আশা নিয়ে ২৮ সেপ্টেম্বর মঙ্গলবার সকালে হযরত শাহজালাল ইন্টারন্যাশনাল এয়ারপোর্টে এসে হতাশ হতে হয়েছেন দুবাইগামী প্রবাসী বাংলাদেশিদের।

কারণ, শুরু হয়নি বিমানবন্দরে স্থাপিত আরটিপিআর ল্যাবে তাদের কোভিড-১৯ এর নমুনা পরীক্ষার কার্যক্রম।

অথচ প্রায় ১ মাসের কর্মযজ্ঞ শেষে আজ থেকে দুবাইগামীদের কোভিড-১৯ পরীক্ষা শুরু হবে- এমন খবর জেনেই তারা এসেছিলেন বিমানবন্দরে।

এই ভোগান্তির শেষ চান দেশের অর্থনীতিকে মজবুত করতে বিদেশের মাটিতে ঘাম ঝড়ানো এ রেমিটেন্স যোদ্ধারা।

বিমানবন্দরে ল্যাব বসানোর কার্যক্রম শেষ হলেও দুবাই থেকে মেলেনি করোনা পরীক্ষা শুরুর সবুজ সংকেত।

ঠিক কবে শেষ হবে দুবাইগামী প্রবাসীদের ভোগান্তি তা-ও নিশ্চিত করে জানাতে পারেননি বেসামরিক বিমান পরিবহন প্রতিমন্ত্রী।

তিনি বলেন, করোনা পরীক্ষা শেষ না করে দুবাই পাঠালে তাদের আবারও দেশে ফেরত আসতে হতে পারে। তাই অনুমোদনপত্র পেলেই পরীক্ষা শুরু হবে।

তবে কবে নাগাদ এই কার্যক্রম শুরু হতে পারে তা নির্দিষ্ট করে জানাতে পারেননি প্রতিমন্ত্রী।

এদিকে, ল্যাবে করোনা পরীক্ষা করাতে দুবাইগামী যাত্রীরা আজও বিমানবন্দরে এসে ভোগান্তির শিকার হন।

গত ৩০ আগস্ট বিমান উড়ার ৬ ঘণ্টা আগে বাংলাদেশ থেকে দুবাইগামী যাত্রীদের বিমানবন্দরে র‌্যাপিড পিসিআর টেস্ট বাধ্যতামূলক করে নির্দেশনা জারি করে সংযুক্ত আরব আমিরাত।

সেই নির্দেশনা আমলে নিয়ে বিমানবন্দরে ৬টি আরটিপিসিআর ল্যাব স্থাপন করেছে সরকার। সূত্রঃ সময় টিভি