সৌদির বাইরের দেশগুলোর মুসলিমদের জন্য আবার ওমরাহ করার অনুমোদন দিয়েছে সৌদি আরব সরকার। এক্ষেত্রে কিছু নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। বলা হয়েছে, পুরোপুরিভাবে করোনা ভাইরাসের টিকা নিয়েছেন এমন মুসলিমরা ওমরাহ করতে যেতে পারবেন। আগামী ৯ই আগস্ট থেকে তারা সৌদি আরবে পা রাখতে পারবেন ওমরাহ করার জন্য।

সৌদি আরবের সরকারি সংবাদ মাধ্যম সৌদি গেজেটে প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে এ কথা বলা হয়েছে। এতে আরো বলা হয়, টিকা নিয়েছেন এমন ওমরাহযাত্রীদের গ্রহণ করা শুরু হবে ৯ই আগস্ট থেকে। এ জন্য প্রায় ৫০০ ওমরাহ সেবাদানকারী কোম্পানি এবং প্রতিষ্ঠান তৎপর হয়ে উঠেছে। এর সঙ্গে যুক্ত কমপক্ষে ৬০০০ বিদেশি ওমরাহ বিষয়ক এজেন্টও।

যেসব মুসলিম ওমরাহ করতে চান, তারা ৩০টি ইলেকট্রনিক সাইট এবং প্লাটফরম থেকে ওমরাহ প্যাকেজ বুকিং দিতে পারবেন এবং সব রকম পেমেন্ট পরিশোধ করতে পারবেন। এসব ইলেকট্রনিক সাইট ও প্লাটফরম সারাবিশ্বেই বিদ্যমান। এ কথা জানিয়েছেন হজ ও ওমরাহ বিষয়ক জাতীয় কমিটির সদস্য হানি আলি আল-আমিরি। তিনি আরো বলেছেন, যারা করোনা ভাইরাসের বিরুদ্ধে পূর্ণাঙ্গ টিকা নিয়েছেন, তারাই শুধু ওমরাহ করার জন্য ভিসার আবেদন করতে পারবেন। এ ছাড়া তাদেরকে চমৎকার সুস্থ অবস্থায় থাকতে হবে। বিদেশ থেকে যাওয়া ওমরাহ যাত্রীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার জন্য যেসব প্রোটোকল দেয়া হবে তা অবশ্যই মেনে চলতে হবে।

হানি আলি আল-আমিরি বলেন, সব রকম সেবা এবং প্যাকেজ অনলাইনে পাওয়া যাচ্ছে। বিশ্বজুড়ে তা উন্মুক্ত। বি২বি (বিজনেস টু বিজনেস) গ্রুপ অথবা বি২সি (বিজনেস টু কনজ্যুমার) ব্যক্তিগতভাবে এসব প্লাটফরমে বুকিং দেয়া যাবে। এক্ষেত্রে সৌদি ওমরাহ বিষয়ক কোম্পানিগুলো আবাসন, পরিবহন ও অন্যান্য প্রয়োজনীয় সেবা প্যাকেজের মধ্যে রাখবে। ওমরাহযাত্রী তার পছন্দমতো একটি ওমরাহ সেবাদানকারী কোম্পানি বা প্রতিষ্ঠান বেছে নিতে পারবেন। ফ্লাইট, পরিবহন, হোটেল, খাওয়ার খরচ সবই ইলেকট্রনিক মাধ্যমে পরিশোধ করতে পারবেন।
হানি আলি আল-আমিরি আরও বলেন, ওমরাহ বিষয়ক ভাল গুনসম্পন্ন কিছু কোম্পানি এবং প্রতিষ্ঠান এরই মধ্যে সব নিয়ম মেনে যেসব মানুষ ওমরাহ করতে যেতে চান তাদেরকে সেবা দিতে পুরোপুরি প্রস্তুত।