সংযুক্ত আরব আমিরাতে নাগরিক ও প্রবাসীদের সরকারী সেবা পেতে ফেস আইডি চালু (ভিডিও সহ)

সংযুক্ত আরব আমিরাত দেশের নাগরিক এবং প্রবাসীদের জন্য প্রথম সুরক্ষিত ডিজিটাল জাতীয় পরিচয় প্রকল্প তৈরির পরিকল্পনার অংশ হিসাবে একটি বায়োমেট্রিক ফেসিয়াল এবং ফিঙ্গারপ্রিন্ট স্বীকৃতি প্রযুক্তি চালু করেছে।

এই প্রযুক্তির ফলে হাতে করে ডকুমেন্ট অর্থাৎ প্রিন্টকৃত কাগজ বা লেখা বহন করতে হবে না।

তাই কোনো ঝামেলা ছাড়াই যেকোনো কাজ খুব অল্প সময়ে করা যাবে।

তাছাড়া কোনো কাজের জন্য সরকারি অফিসে না গিয়েও বাসায় বসে সরকারি সেবা পাওয়া যাবে।

সংযুক্ত আরব আমিরাতের সহ-রাষ্ট্রপতি এবং প্রধানমন্ত্রী ও দুবাইয়ের শাসক শেখ মোহাম্মদ বিন রশিদ আল মাকতুম প্রথম নতুন উদ্যোগটি কার্যকর করার পরিকল্পনা ঘোষণা করার দুই মাসেরও কম সময়ের পরে এটি কার্যকর হয়েছে।

রাষ্ট্রীয় সংবাদ সংস্থা ওয়ামের একটি বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়েছে, ফেস প্রিন্ট প্রযুক্তি ব্যবহার করে ডিজিটাল সনাক্তকরণ অ্যাপ্লিকেশন, সংযুক্ত আরব আমিরাত পাসে নিবন্ধকরণ প্রক্রিয়া সহজতর করে, যাতে গ্রাহকদের পরিষেবাগুলোর জন্য সরকারী কেন্দ্রগুলোতে যেতে না হয়।

সংযুক্ত আরব আমিরাত সরকার বিশ্বের প্রথম সরকারগুলোর মধ্যে একটি যা এই জাতীয় প্রযুক্তি গ্রহণ করেছে।

উদ্দেশ্যটি হলো মানুষের জীবনযাত্রাকে সহজতর করা এবং ডিজিটাল সরকারী পরিষেবাগুলো পাওয়ার জন্য দ্রুত এবং কার্যকর উপায় সরবরাহ করা।

নিবন্ধিত ডিজিটাল আইডিগুলির সংখ্যা এখন পর্যন্ত ১.৩৮ মিলিয়নেরও বেশি পৌঁছেছে, যার মধ্যে ৬২৮০০০ অ্যাকাউন্ট যাচাই করেছে।